বাংলাদেশ-ভারতের সম্পর্ক কোনো শক্তিই ভাঙতে পারবে না বলে মন্তব্য করেছেন ভারতের কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। তিনি বলেন, দুই দেশের সম্পর্ক অত্যন্ত গভীর। ভাষা ও সংস্কৃতির ক্ষেত্রে উভয়ের মধ্যে বেশ মিল রয়েছে। মঙ্গলবার পশ্চিমবঙ্গের উত্তর ২৪ পরগনা জেলার পেট্রাপোলে ভারত-বাংলাদেশ সীমান্ত পরিদর্শন করার সময় এসব কথা বলেন অমিত শাহ। এ খবর দিয়েছে ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস।

খবরে জানানো হয়, পেট্রাপোল স্থল সীমান্তে অনুষ্ঠিত ল্যান্ড পোর্ট অথরিটি অব ইন্ডিয়া (এলপিআই) ও বিএসএফের একাধিক প্রকল্পের উদ্বোধন ও ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন অনুষ্ঠানে যোগ দেন অমিত শাহ। এসময় অমিত শাহ বলেন, বাংলাদেশের সঙ্গে ভারতের সম্পর্ক অত্যন্ত গভীর। আমাদের দু’ দেশের সংস্কৃতি, ধর্ম, প্রথা ও জীবনধারা হাজার বছর ধরে একে অপরের সঙ্গে জড়িয়ে আছে। তাই দুদেশের মধ্যেকার সম্পর্ক কেউ ছিন্ন করতে পারবে না। বাংলাদেশের ইতিহাসে ভারত গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখেছে। আমাদের জওয়ানরা ১৯৭১ সালের মুক্তিযুদ্ধে বড় ভূমিকা রেখেছে। 
এ সময় বাংলাদেশের সঙ্গে সম্পর্ক শক্তিশালী করার ক্ষেত্রে বন্দর কর্তৃপক্ষের ভূমিকার প্রশংসা করে তিনি বলেন, ২০১৬-১৭ অর্থ বছরে দেশের স্থলবন্দরগুলোর মাধ্যমে যে ১৮ হাজার কোটি রুপি বাণিজ্য হয়েছিল, তা আজ বেড়ে ৩০ হাজার কোটি রুপি ছাড়িয়েছে।

তিনি আরও বলেন, শুধু পেট্রাপোল-বেনাপোল বন্দর দিয়ে প্রতিদিন ১১ হাজার যাত্রীর আসা-যাওয়ার সুবিধা রয়েছে। এই স্থলবন্দর দিয়ে প্রতিদিন ৬০০ থেকে ৭০০ ট্রাক যাতায়াত করে। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ক্ষমতায় আসার পর সীমান্তে উন্নয়ন হয়েছে, কানেক্টিভটি বেড়েছে, বাণিজ্য বেড়েছে।

মানবজমিন থেকে সংগৃহীত

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *